বাংলাদেশ | সোমবার, অক্টোবর ২৬, ২০২০ | ১০ কার্তিক,১৪২৭

জাতীয়

21-12-2016 08:49:57 PM

নির্বাচনে কারচুপি করা বিএনপির অভ্যাস: ওবায়দুল কাদের

newsImg
আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, নির্বাচনে কারচুপি করা বিএনপির পুরোনো অভ্যাস। যা অতীতে আমরা দেখেছি। আমাদের কারচুপি করার কোনো অভ্যাস নেই। নারায়ণগঞ্জে নির্বাচনের সুষ্ঠু পরিবেশ বিরাজ করছে। আমরা নির্বাচনকে অবাধ ও সুষ্ঠু করার জন্য নির্বাচন কমিশনকে স্বাধীন কর্তৃত্বপূর্ণ ভূমিকা পালনে সহযোগিতা করছি। তারা যেখানেই যা চাচ্ছে তাতে সরকার হিসাবে আমাদের যা করণীয় তা করছি এবং দল হিসাবে আমরা আমাদের সংযম সহিষ্ণুতা প্রদর্শন করছি।বুধবার বিকেলে আওয়ামী লীগ সভাপতির ধানমন্ডির রাজনৈতিক কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি একথা বলেন। এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন জাহাঙ্গীর কবীর নানক, আব্দুর রহমান, একেএম এনামুল হক শামীম, ফরিদুন্নাহার লাইলী, আবদুস সোবহান গোলাপ, অসীম কুমার উকিল, দেলোয়ার হোসেন, বিপ্লব বড়ুয়া প্রমুখ। নির্বাচনের আগেই বিএনপির হেরে যাওয়ার মানসিকতা গড়ে উঠেছে মন্তব্য করে ওবায়দুল কাদের বলেন, পাঁচ সিটি করপোরেশন নির্বাচনের আগেও এমনকি ভোটের দিন বিকালেও নির্বাচনে কারচুপির অভিযোগ করেছিল বিএনপি। কিন্তু নির্বাচনে বিএনপি জয়ী হয়েছিল। বিএনপি জিতলে সব ভালো কিন্তু হেরে গেলে খারাপ। নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশন নির্বাচন নিয়েও এখন তারা কারচুপির আশঙ্কা করছেন, যা হয়তো নির্বাচনের দিন পর্যন্ত চলবে। তিনি আরো বলেন, নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশন নির্বাচনকে বিএনপি তাদের জনপ্রিয়তা যাচাইয়ের ‘টেস্ট কেস’ হিসাবে নিয়েছে। বিজয়ী হলে বিএনপি বলবে সরকারের গ্রহণযোগ্যতা নেই। পরাজিত হলে বিএনপি বলবে সরকার নির্বাচনে কারচুপি করে তাদের বিজয়কে ছিনতাই করেছে। আমরাও অবাধ এবং সুষ্ঠু নির্বাচন করে বিএনপিকে আন্দোলন করার কোনো সুযোগ দেবো না। আইভী অভিযোগ করেছেন তৃতীয় শক্তির কারণে নির্বাচনে তার পরাজয় হতে পারে সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের জবাবে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, এখন আর তিনি এ দাবি করেন না। তিনি বলেন, এ নির্বাচন নিয়ে নানা টানাপড়েনের কথা বলা হলেও এখন নির্বাচন নিয়ে খুবই উৎসবমুখর পরিবেশ সৃষ্টি হয়েছে। তার ফলাফল আমরা আগামীকাল দেখতে পারবো। মানুষ যেন সুষ্ঠু ও অবাধে ভোট দিতে পারে এমন ব্যবস্থা নিতে সেলিনা হায়াৎ আইভী দাবি করেছেন সাংবাদিকদের এ প্রশ্নের জবাবে ওবায়দুল কাদের বলেন, এই দাবিটা তিনি সরকারের কাছে করেননি, নির্বাচন কমিশনের কাছে করেছেন। একজন প্রার্থী হিসাবে স্বাধীন নির্বাচন কমিশনের কাছে এমন দাবি করার অধিকার আইভীর রয়েছে।
খবরটি সংগ্রহ করেনঃ- Desk
এই খবরটি মোট ( 1401 ) বার পড়া হয়েছে।
add

Share This With Your Friends